আজ || সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২
শিরোনাম :
 


কয়রার কৃতি সন্তান আব্দুল হাকিমে’র সাড়ে ৩’শ অসচ্ছল পরিবারের মাঝে খাদ্য ও বস্ত্র সামগ্রী বিতরণ

 

 


খুলনার কয়রা উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে করোনা ভাইরাসের সংক্রমনের কারনে অসহায় দরিদ্র অসচ্ছল পরিবারে ঈদ-উল ফিতরকে সামনে রেখে সাড়ে ৩’শ কর্মহীন,গরীব ও অসচ্ছল পরিবারে নিজ উদ্যোগে খাদ্য ও বস্ত্র সহায়তা প্রদান করেন দক্ষিণ খুলনার কয়রা উপজেলার কৃতি সন্তান, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের” অতিরিক্ত পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মোঃ আব্দুল হাকিম।

শনিবার (২৩ মে)সকালে​ উপজেলার আমাদী ইউনিয়নে নাকশা গ্রামে আব্দুল হাকিম এর ভাই বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মোঃ আয়বুর রহমান সানা​, সাবেক ইউপি ৯ নং ওয়ার্ড সদস্য মোঃ মিজানুর রহমান সানা ও মোঃ আছাবুর রহমান(সোহাগ)ডুমুরিয়া উপজেলা​ পরিবার পরিকল্পনা কার্যলয়ের ষ্টোর ইনচার্জ
কর্মহীন,গরীব ও অসচ্ছল মানুষের মাঝে খাদ্য ও বস্ত্র​ সহায়তা তুলেদেন।

এদিকে অতিরিক্ত পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মোঃ আব্দুল হাকিম জানান আমার জন্মস্থান, কয়রা উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে কর্মহীন,গরীব ও অসচ্ছল মানুষের মাঝে খাদ্য ও বস্ত্র​ সামগ্রী বিতরণ করছি। সেই সাথে ঢাকার বাসা থেকে ও কর্মহীন,গরীব ও অসচ্ছল​ মানুষের হাতে খাদ্য বস্ত্র তুলে দিচ্ছি।তিনি আরও জানান মানুষ মানুষের জন্য। আত্ম-মানবতার সেবাই আমাদেরকে নিয়োজিত করতে হবে। মানব সেবাই সবচেয়ে বড় ধর্ম বলে আমি মনে করি। সকল প্রতিষ্ঠান ও সংগঠনগুলোকে যার যার জায়গা থেকে করোনা সংকট মোকাবিলায় এগিয়ে আসতে হবে। সমন্বিত প্রচেষ্টা ছাড়া এই সংকট দূর করা সম্ভব নয়।সচেতন থাকার পাশাপাশি সামাজিক দায়বদ্ধতার জায়গা থেকে আসুন আমরা সকলেই সাধ্যমতো অসহায় মানুষদের সাহায্য করি। জনগণ, সরকার ও বিত্তবান মানুষদের সমন্বিত প্রচেষ্টার মাধ্যমে করোনা সংকট মোকাবিলা করা সম্ভব হবে বলে আমি মনে করি। অন্যথায় বাংলাদেশকে এই সংকটের জন্য চরম মূল্য দিতে হবে।


Top