আজ || বৃহস্পতিবার, ০৭ জুলাই ২০২২
শিরোনাম :
  তালায় কোম্পানী কর্মী মিঠুন দাশ লাপাত্তা!       তালায় পল্লীসমাজের কমিটি পুর্নগঠন       তালার জালালপুর ইউনিয়নে ঈদ উপলক্ষে ভিজিএফ চাল বিতরণ       শ্যামনগরে ঝুঁকিপূর্ণ শিশুশ্রম নিরসনে চাকরি মেলা অনুষ্ঠিত       ৫ জুলাই মৃত্যু দিবস উপলক্ষে বীর মুক্তিযোদ্ধা মোড়ল আব্দুস সালামের সংক্ষিপ্ত জীবনী       আজ মহান মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক প্রয়াত বীর মুক্তিযোদ্ধা মোড়ল আব্দুস সালাম’র ১১তম মৃত্যুবার্ষিকী       এবার বিমানে চড়েই গায়ানা গেল বাংলাদেশ দল       পুলিশ কর্মকর্তার ২৮ কোটি টাকা আত্মসাতের প্রমাণ দুদকে       গ্যাস সংকট কাটছে না, শুরু হয়েছে বিদ্যুৎস্বল্পতা       বঙ্গবন্ধু পরিষদ খুলনা মহানগর শাখার সহ- বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক হয়েছেন গৌতম    
 


করোনা সংক্রমণ থেকে বাঁচার জন্য সচেতনতার কোন বিকল্প নাই…. গ্লোরিয়া ঝর্ণা সরকার এমপি

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও সংরক্ষিত সংসদ সদস্য এ্যাডঃ গ্লোরিয়া ঝর্ণা সরকার বলেছেন, করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে সরকার সবধরণের প্রস্তুতি নিয়েছে।

করোনা থেকে দেশের মানুষকে ভাল রাখার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাত-দিন প্রাণপণ চেষ্টা করে যাচ্ছেন। কিন্তু করোনা ভাইরাসের জীবানু এতটাই শক্তিশালী ও ভয়ঙ্কর এর বিরুদ্ধে লড়তে গিয়ে বিশ্বের উন্নত দেশও হিমশিম খাচ্ছে। আমেরিকা, ইতালির মতো দেশে চিকিৎসা দেওয়ার লোক নাই। করোনা এমন এক জীবানু রাজা, বাদশা ও এমপি’কেও ক্ষমা করে না। কার শরীরে করোনা ভাইরাস রয়েছে এবং কোন ব্যক্তি বহন করছে তা আমাদের কারো জানা নাই। এর জীবানু ছড়িয়ে পড়লে দেশের মানুষকে বাঁচানো কঠিন হয়ে পড়বে।

করোনা সংক্রমণ থেকে বাঁচার জন্য সচেতনতার কোন বিকল্প নাই উল্লেখ করে তিনি বলেন, করোনা প্রতিরোধে আমাদের অধিক সচেতন হতে হবে। আমরা কারো সাথে আলিঙ্গন, কুলাকুলি, করমর্দন ও পায়ে হাত দিয়ে সালাম করবো না। যেখানে সেখানে থু থু ফেলবো না। সার্বক্ষণিক নিরাপদ দূরত্ব বজায় রেখে চলবো। অহেতুক ঘর হতে বের হবো না। এমপি ঝর্ণা সরকার আরো বলেন, সরকারের স্বাস্থ্য বিভাগের যে নির্দেশনা রয়েছে তা যদি আমরা মেনে চলি তাহলেই করোনা প্রতিরোধ করা সম্ভব। আমরা সচেতন না হলে দেশের কোন উন্নয়ন ও প্রধানমন্ত্রীর চেষ্টা কাজে আসবে না। তিনি বলেন, শেখ হাসিনা আছে বলেই আমরা সুখের মুখ দেখছি। উন্নয়নের সুফল ভোগ করছি।

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, দেশের পর্যাপ্ত খাদ্য মজুদ রয়েছে। আপনারা কেউ না খেয়ে থাকবেন না। খাদ্য নিয়ে কারোর দূশ্চিন্তার কোন কারণ নেই। ইতোমধ্যে সরকার খাদ্য সহায়তা প্রদান শুরু করেছে। যা আগামীতে যতদিন প্রয়োজন অব্যাহত থাকবে। তিনি করোনার ভয়াবহতা তুলে ধরে জনসাধারণের উদ্দেশ্যে বলেন, জাতির জনক আমাদের সোনার দেশ দিয়ে গেছেন। আমরা প্রয়োজনে সোনার দেশের পানি খেয়ে থাকবো। তবুও করোনা থেকে দেশ এবং দেশের মানুষকে মুক্ত করবো। তিনি করোনা সংক্রমণের কারণে উদ্ভূত পরিস্থিতিতে জনসাধারণের পাশে থাকার জন্য আওয়ামী লীগ ও দলীয় সংগঠনের নেতৃবৃন্দের প্রতি আহ্বান জানান।

তিনি রোববার দুপুরে খুলনা জেলার পাইকগাছা পৌর এলাকায় এলাকার কৃতি সন্তান সিআইপি আকবর জেএম-এর প্রতিষ্ঠিত জাপান বাংলাদেশ (আইটি) কোম্পানি কর্তৃক আয়োজিত খ্রীষ্টান ধর্মলম্বী ও দুস্থ এবং অসহায় মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তুতায় এ সব কথা বলেন।

মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীরের সভাপতিত্বে ক্যাথলিক খ্রীষ্টান মিশন ও সুন্দরবন কিন্ডার গার্টেন স্কুল মাঠে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, ওসি এজাজ শফি, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আনোয়ার ইকবাল মন্টু, কাউন্সিলর শেখ মাহবুবুর রহমান রনজু, ইউপি চেয়ারম্যান পঞ্চানন মন্ডল, অতশী সরকার, সত্যজিৎ বাইন, পাইকগাছা প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি মোঃ আব্দুল আজিজ, যুগ্ম-সম্পাদক এন ইসলাম সাগর, যুবলীগনেতা এমএম আজিজুল হাকিম, শেখ রাজু আহমেদ, শেখ জামাল হোসেন, ছাত্রলীগনেতা রায়হান পারভেজ রনি, আন্দ্রীয় ডি রোজারিও, আগস্টিন সরকার ও তাপস মিস্ত্রী।


Top